Bangla
23 days ago

জানার পরিধি বাড়াতে দেখুন এ ৯টি শিক্ষামূলক ইউটিউব চ্যানেল

Published :

Updated :

ইন্টারনেট আর সোশ্যাল মিডিয়ার কল্যাণে ঘরে বসেই বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে উপভোগ করতে পারা যায় নানা কন্টেন্ট। কন্টেন্ট মেকারদের এ যুগে চলুন জেনে নেওয়া যাক কিছু শিক্ষামূলক অনলাইন প্লাটফর্মের কথা যেগুলো হয়ে উঠতে পারে জ্ঞানার্জনের ক্ষেত্রে আপনার বিশ্বস্ত বন্ধু।

প্যানোরামা ক্রিয়েটরস

বাংলাদেশে ডকুমেন্টারি বা প্রামাণ্যচিত্র নির্মাণের জগতে একটি অনবদ্য নামপ্যানোরামা ক্রিয়েটরস বর্ষীয়ান প্রামাণ্যচিত্র নির্মাতা মাসুদ চৌধুরী পিটু' হাত ধরে ১৯৯৫ সালে যাত্রা শুরু করা প্রতিষ্ঠানটি বিগত প্রায় তিন দশক ধরে একটানা দাপটের সঙ্গে কাজ করে যাচ্ছে দেশে এবং বিদেশে। 

বাংলাদেশের বিভিন্ন অঞ্চলকে প্রামাণ্য চিত্রের মাধ্যমে তুলে ধরার মধ্য দিয়ে দেশের প্রকৃতি, ইতিহাস-ঐতিহ্য, জীবনসংস্কৃতি, আর্থসামাজিক উন্নয়ন, ইত্যাদি বিষয় সবার সামনে তুলে ধরার গুরুদায়িত্ব পালন করে যাচ্ছে প্রতিষ্ঠানটি। 

১৯৯৭ সালে জাতীয় সম্প্রচার মাধ্যম বাংলাদেশ টেলিভিশন - বিটিভিতে মাসুদ চৌধুরী পিটুর চিত্রগ্রহণ পরিচালনায় বাংলাদেশের প্রথম ধারাবাহিক প্রামাণ্যচিত্রদেখা-অদেখাসম্প্রচারের মধ্য দিয়ে যাত্রা শুরু করা এবং এর ধারাবাহিকতায় স্যাটেলাইট টেলিভিশনগুলোয়  নিয়মিত প্রামাণ্যচিত্র প্রচারকারী   প্রতিষ্ঠান টেলিভিশনকেন্দ্রিক প্রামাণ্যচিত্রের বাইরে বর্তমানে অনলাইন প্লাটফর্মেও বেশ সরব। 

২০১৬ সালের নভেম্বরে প্যানোরামা ক্রিয়েটরস তাদের প্রথম ইউটিউব চ্যানেল 'প্যানোরমা ডকুমেন্টারি' মাধ্যমে অনলাইনে যাত্রা শুরু করে। বর্তমানে চ্যানেলটিতে প্রায় আট শতাধিক ভিডিও রয়েছে। প্লাটফর্মটির একটি বিশেষ দিক হলো এটি গ্রামীণ সংস্কৃতি জীবনধারার ওপর সবচেয়ে বেশি ভিডিও বানিয়ে থাকে। 

তবে দর্শকের চাহিদা পূরণে প্রতিষ্ঠানটি বর্তমানে আরো কিছু ইউটিউব চ্যানেল পরিচালনা করছে 'প্যানোরামা কুকিং', 'প্যানোরামা বেয়ন্ড দ্য বাউন্ডারি', 'প্যানোরামা হাট বাজার', 'প্যানোরামা এরাউন্ড দ্য ওয়ার্ল্ড', 'প্যানোরামা সংস' নামে। বাংলাদেশ ছাড়াও ভারত, মালয়েশিয়া, নেপাল, ভুটানের মতো দেশেকে নিয়েও ডুকুমেন্টারি নির্মাণ করেছে প্রতিষ্ঠান। 

এছাড়া 'প্যানোরামা ডিসকভারি', 'প্যানোরমা ক্রিয়েটরস ডকুমেন্টারি' নামে দুইটি ফেসবুক পেইজের মাধ্যমেও তারা প্রতিনিয়ত মানসম্মত কন্টেন্ট মানুষকে উপহার দিয়ে যাচ্ছেন। 

এসব বিষয়ে জানতে চাইলে প্যানোরামা ক্রিয়েটরস এর প্রোগ্রাম ম্যানেজার মালিহা মেহনাজ শায়েরী বলেন, "আমাদের উদ্দেশ্য হচ্ছে বাংলাদেশের মানুষের কাছে এমনকি সারাবিশ্বে দেশের শেকড়ের গৌরবময় ঐতিহ্য তুলে ধরা। আমরা আগামীতেও কাজ অব্যাহত রাখতে চাই। এমনকি প্রযুক্তির যুগে আগামীতে সব কিছু যান্ত্রিক হয়ে গেলেও আমরা আমাদের কাজের গুণগত মান অক্ষুণ্ণ রেখে আমাদের জীবন সংস্কৃতি সবার মাঝে টিকিয়ে রাখতে চাই।"

কি কেন কিভাবে

বর্তমানে দর্শকদের জ্ঞানমূলক বিভিন্ন তথ্য উপস্থাপনের ক্ষেত্রে যেসব অনলাইন মাধ্যমগুলো কাজ করে যাচ্ছে তার মধ্যে কি কেন কিভাবে অন্যতম। ২০১৭ সালে যাত্রা শুরুর পর থেকেই দর্শকদের কাছে ব্যাপক সাড়া পায় প্লাটফর্মটি। এখানে একজন দর্শক দেশ-বিদেশের বিভিন্ন তথ্য খুঁজে পাবেন। 

বর্তমানে কি কেন কিভাবের ইউটিউব চ্যানেলে প্রায় পাঁচ শতাধিক ভিডিও রয়েছে। বিজ্ঞান, বিশ্ব রাজনীতি, প্রযুক্তি, বিশ্ব সভ্যতা, মহাকাশ, মহাদেশ, অর্থনীতি, ধর্ম, স্বাস্থ্য, ইত্যাদি বিভিন্ন বিষয়ে বিশদ ধারণা লাভ করা যাবে এখানকার বিভিন্ন ভিডিওর মাধ্যমে। এছাড়া বিশ্বের বিভিন্ন দেশ সম্পর্কে খুঁটিনাটি অনেক তথ্যও মিলবে চ্যানেলটিতে। 

এসব বিষয়ে কি কেন কিভাবে এর প্রতিষ্ঠাতা হাসান আকাশ বলেন, "ইতিহাস, ভূগোল, বিশ্ব-রাজনীতিসহ দর্শক আগ্রহের জটিল বিষয়গুলো আমরা সহজবোধ্য করে উপস্থাপন করতে চেয়েছি। আমাদের চারপাশে ঘটে যাওয়া বিষয়গুলো যেন বছরের শিশু থেকে ৭০ বছরের বৃদ্ধ সবাই বুঝতে পারে, এমন সহজবোধ্য করে ভিডিও তৈরি করাই আমাদের উদ্দেশ্য।"

আদ্যোপান্ত

বর্তমানে জ্ঞান পিপাসুদের মাঝে বেশ জনপ্রিয় একটি প্লাটফর্মের নাম আদ্যোপান্ত। প্লাটফর্মটিও একজন মানুষকে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের নানা অজানা তথ্য গঠনমূলক বিশ্লেষণাত্নকভাবে উপস্থাপনের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে আসছে। ২০২০ সালে যাত্রা শুরুর পর থেকে এখনো পর্যন্ত প্রায় দুই শতাধিক ভিডিও আদ্যোপান্তের ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশ করা হয়েছে। 

বিশ্ব-অর্থনীতি, বিশ্ব-রাজনীতি, প্রাণিজগত, বিজ্ঞান, জীবন সংস্কৃতি, বিশ্ব পরিচিতি, ইত্যাদি বিষয়ের ওপর অসংখ্য কন্টেন্ট প্রকাশ করা হয়েছে প্লাটফর্মটিতে। যে কেউ এসব ভিডিও দর্শনের মাধ্যমে তার জ্ঞানের ভান্ডারকে আরো সমৃদ্ধ করতে পারবেন। বিশেষত ইতিহাসের বিভিন্ন বিষয় নিখুঁতভাবে উপস্থাপনের ক্ষেত্রে বেশ দক্ষতার স্বাক্ষর রেখেছে প্লাটফর্মটি। 

এসব বিষয়ে আদ্যোপান্তের প্রতিষ্ঠাতা মাহবুব আলম বলেন, "আদ্যোপান্তে শুরু থেকেই ভূগোল এবং ইতিহাস নিয়ে কন্টেন্ট দিয়ে আসছিলাম। পরবর্তীতে দর্শকদের আগ্রহের কারণে ভূ-রাজনীতি এবং সাম্প্রতিক উল্লেখযোগ্য ঘটনাবলি নিয়েও কন্টেন্ট দেয়া শুরু করি। আর দর্শকদের সাড়া সম্পর্কে বলতে গেলে আমি বলব আদ্যোপান্ত ভক্তরাই প্রতিনিয়ত আমাদের বিপুল সমর্থন এবং উৎসাহ যুগিয়ে আসছে।"

বাপকা বেটা

বছর বয়সী ঋতুরাজ ভৌমিকের কথা তো নিশ্চয়ই আপনাদের মনে আছে। বিশ্বের কনিষ্ঠতম সিরিজ বই লেখক হিসেবে যিনি সম্প্রতি নিজের নাম লিখিয়েছেন গিনেস বুক অব ওয়াল্ড রেকর্ডসে। বলছি সেই ঋতুরাজ ভৌমিক এবং তার বাবা শুভাশীষ ভৌমিকের মনোমুগ্ধকর অনলাইন প্লাটফর্মবাপকা বেটা’র কথা যেটি বর্তমানে ফেসবুক এবং ইউটিউবে নিরলসভাবে বিভিন্ন দেশ বস্তুর ওপর শিক্ষামূলক ভিডিও বানিয়ে দর্শকদের জ্ঞানের বাসনা তৃপ্ত করে আসছে। 

এখনো পর্যন্ত প্রায় ১০ টি দেশ ঘুরেছেন তারা এবং সেসব দেশের বিভিন্ন অজানা গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দর্শকদের জানিয়ে আসছেন। ভারত, সংযুক্ত আরব আমিরাত, সুইজারল্যান্ড, সিঙ্গাপুরসহ বিভিন্ন দেশের রীতি-নীতি এবং মানুষের জীবনযাত্রাকে আকর্ষণীয়ভাবে ফুটিয়ে তুলেছে অনলাইন প্লাটফর্মটি। এছাড়া খেলাধুলা, বিনোদন এবং ভ্রমণ বিষয়ক বিভিন্ন তথ্যও পাওয়া যাবে এখানে। 

প্লাটফর্মটির প্রতিষ্ঠাতা শুভাশীষ ভৌমিক বলেন, "আমরা প্রথমদিকে বাবা ছেলের বিভিন্ন গান প্লাটফর্মটিতে প্রকাশ করতাম। পরবর্তীতে ভাবলাম কিছু জ্ঞানমূলক ভিডিও বানালে সেখান থেকে দর্শকরা অনেক কিছু শিখতে পারবে। আর সে থেকেই নিয়মিত এখানে কাজ করে যাচ্ছি। ভবিষ্যতেও আমরা ধরনের ভিডিও বানিয়ে দর্শকদের জ্ঞানের খোরাক মেটানোর ক্ষেত্রে ভূমিকা রাখতে চাই।"

সিটিভি বাংলা

যারা ইতিহাস ভালোবাসেন তাদের জন্য একটি আদর্শ প্লাটফর্ম হতে পারে সিটিভি বাংলা। প্রযুক্তির বিকাশের ফলে মানুষের জীবনকে আরো সহজ করতে তৈরি হয়েছে নানা মাধ্যম। কিন্তু মাধ্যমগুলো তৈরির পেছনের গল্প কি, কীভাবে আবিষ্কৃত হলো সেগুলোর প্রাঞ্জল বর্ণনা পাওয়া যায় সিটিভি বাংলায়। 

যেমন ধরুন, আপনার পছন্দের খাবার মিষ্টি কিংবা বিস্কুট কীভাবে তৈরি হলো, পৃথিবীতে বিশ্ববিদ্যালয় ধারণাটির উদ্ভব হলো কীভাবে, আয়না আবিষ্কারের ইতিহাস কী ছিল, কিংবা ধরুন হাতঘড়ি, মোটর গাড়ি অথবা টেলিফোন আবিষ্কারের ইতিহাস কেমন ছিল, ইত্যাদি নানা বিষয়ে বিশদভাবে জানতে পারবেন এ প্লাটফর্মটিতে। 

২০২২ সালে যাত্রা শুরু করা প্লাটফর্মটিতে বর্তমানে শতাধিক ভিডিও রয়েছে। সিটিভি বাংলার প্রতিষ্ঠাতা মাকবুল আহমাদ পাটওয়ারী বলেন, "২০১৫ সালে চ্যানেল নাইনে আলোকিত জ্ঞান নামক একটি ইসলামিক প্রতিযোগিতায় আমি দ্বিতীয় স্থান অর্জন করি। সে থেকে মিডিয়ার সাথে আমার যাত্রা শুরু। একসময় ভাবলাম বাংলাদেশসহ পৃথিবীর বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা ইতিহাস ঐতিহ্যের বিষয়গুলোকে নিয়ে কাজ করার। কাজ করতে গিয়ে দর্শকের কাছ থেকে বেশ ভালো সাড়া পেয়েছি। আর ভবিষ্যতেও আমি ধরনের কাজ চালিয়ে যেতে চাই।”

ঘড়িয়াল বাংলা

প্রাণিজগত খুবই বিচিত্র। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে বাস করা বিভিন্ন বৈশিষ্ট্যের প্রাণীগুলো সর্বদাই মানবমনে কৌতূহলের উদ্রেক করে। আর মানুষের সেই আকাঙ্ক্ষাকে বাস্তবে রূপ দিতে ২০১৮ সালে যাত্রা শুরু করে ঘড়িয়াল বাংলা। অনলাইন ভিত্তিক প্লাটফর্মটিতে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে থাকা প্রাণিজগত সম্পর্কে যাবতীয় তথ্য প্রদান করা হয়। দেশী-বিদেশী বিভিন্ন জীব যারা অনেকগুলো বর্তমানে অস্তিত্ব সংকটে রয়েছে, সেগুলো সম্পর্কে মানুষকে জানানো এবং তাদের বিষয়ে সচেতনতা তৈরি করাই প্লাটফর্মটির মূল কাজ। 

সরীসৃপ, স্তন্যপায়ী, কিংবা কীটপতঙ্গ- প্রণীজগতের সকল শ্রেণি সম্পর্কে ধারণা পাবেন এখানে। পাশাপাশি পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় কীভাবে প্রাণিজগত আমাদের সাহায্য করে আসছে সে সম্পর্কে ধারণা দেওয়া এবং প্রাণিজগত রক্ষায় মানুষের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টির ক্ষেত্রেও কাজ করে যাচ্ছে প্লাটফর্মটি। ফেসবুকের পাশাপাশি ইউটিউবেও নিয়মিত কাজ করে যাচ্ছে ঘড়িয়াল বাংলা।

ওয়ার্ল্ড ইন বেঙ্গলি

নাম শুনেই বোঝা যাচ্ছে অনলাইন ভিত্তিক প্লাটফর্মটি বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে থাকা বিভিন্ন দেশ জাতির তথ্য বাংলা ভাষায় দর্শকদের সামনে উপস্থাপন করে থাকে। বর্তমানে প্রায় তিন শতাধিক ভিডিও নিয়ে এটি দর্শকদের মাঝে বেশ সাড়া ফেলেছে। 

এখানে আপনি পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের পরিচিতি এবং সেখানকার মানুষের জীবনযাত্রা সম্পর্কে সম্যক ধারণা লাভ করতে পারবেন। এছাড়া মধ্য প্রাচ্যের বিভিন্ন দেশ সম্পর্কেও বিশদ আলোচনা করা হয়েছে এখানকার বিভিন্ন ভিডিওতে। পাশাপাশি সাগর, মহাসাগর, মরুভূমিসহ ভ্রমণ সংক্রান্ত বিভিন্ন তথ্যও পাবেন এখানে।

বিশ্ব প্রান্তরে

বিভিন্ন বিষয়ে জানাশোনার একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম হিসেবে বিশ্ব প্রান্তরে ইতোমধ্যেই সবার নজর কেড়েছে। অবসর সময়ে প্লাটফর্মটির বিভিন্ন ভিডিও দেখার মাধ্যমে আপনি সমৃদ্ধ করতে পারবেন নিজেকে। প্রায় তিন শতাধিক ভিডিও রয়েছে অনলাইন মাধ্যমটিতে। এখানে আপনি জানতে পারবেন ঐতিহাসিক প্রাচীন বিভিন্ন নিদর্শন, সভ্যতা সংস্কৃতি, বিশ্বের বিভিন্ন সংঠন সংস্থা, ধর্ম, বিশ্বের বিভিন্ন দেশ শহরের পরিচিতিসহ আরো নানা তথ্য। বর্তমানে ইউটিউব এবং ফেসবুকে নিয়মিত কাজ করে যাচ্ছে প্লাটফর্মটি।

ঈগল আইস

ঈগল আইসের ইউটিউব চ্যানেলে প্রায় চার শতাধিক ভিডিও রয়েছে। এখানে আপনি পাবেন বৈশ্বিক ভূ-রাজনীতি, অর্থনীতি, কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা, ইতিহাস, মেগা প্রকল্প, বিভিন্ন দেশ মহাদেশ পরিচিতি, পারমাণবিক শক্তি, স্বাস্থ্য, প্রতিরক্ষাসহ বিভিন্ন বিষয়ে জ্ঞানার্জনের সুযোগ। এছাড়া খেলাধুলা, ধর্ম এবং অটোমোবাইল শিল্প সম্পর্কেও সম্যক ধারণা লাভ করতে পারবেন এখান থেকে।

বাংলা প্রিনিয়র

প্রযুক্তির বিকাশের ফলে একদিকে যেমন ব্যবসায়িক কাজে গতি বেড়েছে, ঠিক তেমনি বাজারে প্রতিযোগিতা বাড়ায় ব্যবসায়ী উদ্যোক্তাদের প্রতিনিয়ত তাদের ব্যবসায়িক কাজে নতুন চিন্তা ভাবনার সম্মিলন ঘটাতে হচ্ছে। আর ব্যবসায়িক জগতের নানা খুঁটিনাটি বিষয়ের ওপর ভিডিও কন্টেন্ট বানিয়ে মানুষকে এসব বিষয়ে ধারণা দিয়ে আসছে বাংলা প্রিনিয়র। 

বর্তমানে বাংলা প্রিনিয়রের ইউটিউব চ্যানেলে প্রায় ছয় শতাধিক ভিডিও রয়েছে। এখানে আপনি শেয়ার বাজার সম্পর্কে অনেক প্রয়োজনীয় তথ্য জানতে পারবেন। এছাড়া বিমা ব্যবসায়ের বিভিন্ন দিক নিয়েও আলোচনা করা হয়েছে প্লাটফর্মটিতে। পাশাপাশি ব্যবসায় পরিকল্পনা, উদ্যোক্তা, অর্থ ব্যবস্থাপনাসহ বিভিন্ন বিষয়ে জ্ঞানার্জনের সুযোগ রয়েছে এখানে।

তানজিম হাসান পাটোয়ারী বর্তমানে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যাংকিং ইন্স্যুরেন্স বিভাগে এমবিএতে অধ্যয়ন করছেন।

[email protected]

Share this news